বৃহস্পতিবার, ১৮ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৩রা শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
আজ বৃহস্পতিবার | ১৮ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

ভাসুরের বটির কুপে কব্জি হারালেন সাবিনা

শুক্রবার, ০৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ | ৭:৫০ অপরাহ্ণ

ভাসুরের বটির কুপে কব্জি হারালেন সাবিনা
গ্রেফতারকৃত আসামি মানিক

নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জে ভাই বোনদের সংঘর্ষে ৩ জন গুরুতর আহত হয়েছেন। তাদের মধ্যে ভাসুর মানিক মিয়ার ধারালো বটির কুপে সাবিনা নামে এক নারীর হাতের কব্জি বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে। গ্যাস ও জমিসংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে শুক্রবার (৯ ফেব্রুয়ারি) দুপুর ১ টার দিকে মধ্য সানারপাড় এলাকায় এঘটনা ঘটে।

এ ঘটনায় দুজনকে গ্রেপ্তার করেছে থানা পুলিশ।
আহতরা হলেন, ওমর মিয়ার স্ত্রী সাবিনা, বোন চঁাদনী ও ইতি। কব্জি বিচ্ছিন্ন সাবিনাকে প্রথমে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল, পরে পঙ্গু হাসপতালে নিয়ে গেলেও অবস্থা গুরুতর হওয়ায় সেখানে ভর্তি না করায় পিজি হাসপাতালে নিয়ে ভর্তি করা হয়েছে বলে পারিবারিক সূত্র জানায়।

গ্রেপ্তাররা হলেন, মানিক মিয়া(৪০) ও তার ছোট ভাই সুমন মিয়ার স্ত্রী ফাতেমা (৩২)। জানা গেছে, মধ্যসানারপাড় এলাকার মৃত আব্দুল মান্নানের ছেলে মানিক মিয়া, সুমন মিয়া, ওমর মিয়া, জুবায়ের মিয়া, সুজন মিয়া, বোন চঁাদনী,সুনিয়া ও ইতির মধ্যে জমি সংক্রান্ত বিরোধ চলে আসছে দীর্ঘদিন ধরে।

পৈতৃক বাড়ি থেকে ৩ ভাই ও ৩ বোনকে বঞ্চিত করে ভোগদখল করতে চায় মানিক ও সুমন। এনিয়েই মূলত বিরোধ শুরু। তবে ভাইদের মধ্যে বিরোধ চরম রূপ নেয় অবিবাহিত বোন ইতিকে নিয়ে। কেউ তার ভরণ পোষনের দায়িত্ব নিতে চায়না।

তবে সৌদি প্রবাসী জুবায়ের মিয়ার দেওয়া অর্থ ও টিউশনি করে ভরণ পোশন ও পড়াশোনা চালিয়ে যাচ্ছেন ইতি। ইতিকে নিয়েই সংঘর্ষের সূত্রপাত।জানতে চাইলে আহত ইতি বলেন, আমার বড় ভাই মানিক মিয়া ও সুমন মিয়া আমাকে কোনভাবেই সহ্য করতে পারেনা। চলার কিছু খরচ দেয় সৌদি প্রবাসী ভাই জুবায়ের। মাঝে মাঝে ভাই ওমর মিয়া খেঁাজ খবর নেয়। তবে তার অর্থিক অবস্থা ভালনা।

শুক্রবার দুপুরে গ্যাসের চুলায় সাবিনা ভাবী আমার জন্য খাবার রান্না করতে গেলে বড় ভাবী ফাতেমা গালাগালি শুরু করেন। তখন আমি ও বোন চঁাদনী প্রতিবাদ করলে বড় ভাই মানিক, সুমন ও ভাবী ফাতেমা আমরা দুই বোনকে মারধর শুরু করেন।

একপর্যায় মানিক ভাই ধরালো বটি দিয়ে আমাকে লক্ষ করে কুপ দেয়। তখন সাবিনা ভাবী কুপ প্রতিহত করতে গিয়ে তার হাত কব্জি পর্যন্ত কেটে বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে।

সিদ্ধিরগঞ্জ থানার উপপরিদর্শক হুমায়ূন কবির বলেন, তারা ভাই বোনদের মধ্যে আগে থেকেই জমি সংক্রান্ত বিরোধ চলে আসছে। তার জের ধরে গ্যাসের চুলা জ্বালানোকে কেন্দ্র করে মারামারি হয়। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে দুইজনকে গ্রেপ্তার করি। তাদের বিরুদ্ধে মামলার প্রস্তুতি চলছে।




সর্বশেষ  
জনপ্রিয়  

ফেসবুকে যুক্ত থাকুন